• সোম. ডিসে ৫, ২০২২

আশুলিয়ায় সন্ত্রাসী হামলায় ১০ ব্যক্তি আহত

অক্টো ৮, ২০২২
সন্ত্রাসী
স্টাফ রিপোর্টার : সাভারের আশুলিয়ায় চাঁদা আদায় মাদকসেবন ও সন্ত্রাসী কাজ কর্মের প্রতিবাদ করায় দুস্কৃতিকারিদের হামলায় ১০ ব্যক্তি আহত হয়েছেন।
এ ছাড়া সন্ত্রাসীরা বৈধ অস্ত্রের পাশাপাশি অবৈধ আগ্নেয়াস্ত্র নিয়ে দলবলসহকারে
এলাকায় মহড়া দিয়ে ভীতিকর পরিবেশ সৃষ্টি করেছে।
এ ঘটনায় আশুলিয়া থানায় অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে। অভিযোগ সূত্রে
জানাগেছে আশুলিয়া ইউনিয়নের চারাবাগ বাসষ্ট্যান্ডে মার্কেট মালিক হাবিবুল্লাহ
ও তার অপর ৫ ভাই।
মার্কেট ও আশে পাশের এলাকায় প্রায় প্রতিদিন নেশা আসক্ত ব্যক্তিগন নানা
অসামাজিক কাজ করে আসছে।
তারা নৈশ প্রহরীদের নামে অতিরিক্ত চাঁদা আদায়সহ বিভিন্ন বিষয়ে প্রভাব বিস্তর করে সাধারন ব্যবসায়িদের হয়রানি করে।
এ সকল ঘটনার প্রতিবাদ করায় গতকাল অভিযুক্ত শফিক মৃধার নেতৃত্বে ১০/১২জন সন্ত্রাসী বৈধ শর্টগান ও অবৈধ নানা ধরনের আগ্নেয়াস্ত্র নিয়ে ব্যবসায়িদের ওপর অতর্কিত হামলা চালায়।
হামলায় গুরতর আহত হন রড সিমেন্ট ব্যবসায়ি ও মার্কেট মালিক হাবিবুল্লাহ,গ্রীলওয়ার্ক শপ ব্যসায়ি আবু তাহের,হাবিবুল্লাহর বড় ভাই অলি উল্লাহসহ ১০জন।
আহতদেরকে স্থানীয় চিকিৎসা কেন্দ্রে ভর্তি করা হয়েছে। গুরতর আহত হাবিবুল্লাহ ও আবু তাহের জানান চারাবাগ বাসষ্ট্যান্ডে অটোরিক্সা থেকে অবৈধভাবে চাঁদা আদায়,
নৈশ প্রহরীদের নামে চাঁদা আদায়,মাদক সেবনসহ নানা অপকর্মে জড়িত স্থানীয় শফিক মৃধা ও তার সহযোগীরা।
তাদের অসামাজিক কাজ কর্মের প্রতিবাদ করায় আজ অতর্কিত হামলা চালিয়ে তাদেরকে আহত করা হয়েছে এবং এলাকায় অস্ত্রের মহড়া দিয়ে ভীতিকর পরিস্থিতি
সৃষ্টি করে।
একাধিক মামলার আসামী শফিক ও তার সহযোগীরা ইতিপূর্বে হামলা চালিয়ে ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি নুরুজ্জামান,ব্যবসায়ি ইয়ামিন ও
তার স্ত্রীসহ প্রায় অর্ধশত ব্যক্তিকে আহত করে। হামলার বিষয়টি জানতে চাইলে শফিক মৃধার মোবাইল ফোনে একাধিকবার কল করলেও তিনি ফোন রিসিভ করেননি।
এ বিষয়ে আশুলিয়া থানার ওসি কামরুজ্জামান জানান অভিযোগের বিষয়টি তদন্ত করে দেখা হচ্ছে।