• বুধ. ফেব্রু ১, ২০২৩

বিশ্বকাপে আফ্রিকাকে ২০ গোল দিয়েছে ব্রাজিল, ক্যামেরুনকে ৭টি

ডিসে ২, ২০২২

বিশ্বকাপে আফ্রিকাকে ২০ গোল দিয়েছে ব্রাজিল, ক্যামেরুনকে ৭টি

লুসাইল স্টেডিয়ামে আজ বাংলাদেশ সময় রাত ১টায় গ্রুপ

পর্বে নিজেদের শেষ ম্যাচে ব্রাজিলের মুখোমুখি হবে ক্যামেরুন।

প্রথম দুটি ম্যাচ জিতে আগেই বিশ্বকাপের শেষ ষোলো নিশ্চিত করেছে ব্রাজিল।

তিতের দলের জন্য ম্যাচটি স্রেফ নিয়মরক্ষার লড়াই। তবে

গ্রুপ চ্যাম্পিয়ন না রানার্সআপ—সে হিসাব আছে। তাতে

শেষ ষোলোয় প্রতিপক্ষ ঠিক হবে। ক্যামেরুনের শেষ

ষোলো এখনো নিশ্চিত হয়নি। আফ্রিকার দলটির জন্য এই

ম্যাচ তাই বাঁচা–মরার লড়াই। ব্রাজিলের বিপক্ষে জিততে

তো হবেই, তাকিয়ে থাকতে হবে সুইজারল্যান্ড–সার্বিয়া ম্যাচেও।

তবে ব্রাজিলের বিপক্ষে এই ম্যাচের আগে অতীত মুখোমুখি

হওয়ার পরিসংখ্যানে তাকালে হতাশ হবে ব্রাজিল।

বিশ্বকাপে এর আগে দুবার ব্রাজিলের মুখোমুখি হয়ে

একবারও জিততে পারেনি ক্যামেরুন। ১৯৯৪ বিশ্বকাপের

গ্রুপ পর্বে প্রথম ক্যামেরুনের মুখোমুখি হয়ে ৩–০ গোলে জিতেছিল ব্রাজিল।

গ্রুপ পর্বের সে ম্যাচে লাতিন আমেরিকার দলটির হয়ে

গোল করেছিলেন রোমারিও, মার্সিও স্যান্টোস ও বেবেতো।

২০ বছর পর ২০১৪ বিশ্বকাপে আবারও গ্রুপ পর্বে ক্যামেরুনের

মুখোমুখি হয় ব্রাজিল। নেইমারের জোড়া গোল ও ফ্রেদ,

ফার্নান্দিনহোর গোলে সে ম্যাচে ৪–১ ব্যবধানের জয় পেয়েছিল ব্রাজিল।

বিশ্বকাপের বাইরে আরও চারবার ক্যামেরুনের মুখোমুখি হয়েছে ব্রাজিল।

এর মধ্যে দুটি প্রীতি ম্যাচ, অন্য দুটি ম্যাচ ফিফা

কনফেডারেশনস কাপে। ব্রাজিলে ১৯৯৬ সালে অনুষ্ঠিত

প্রীতি ম্যাচে ২–০ গোলে জিতেছিল স্বাগতিকেরা। এরপর

২০০১ কনফেডারেশনস কাপে এসেছে ২–০ গোলের জয়।

কিন্তু ২০০৩ কনফেডারেশনস কাপে ক্যামেরুনের কাছে

১–০ গোলে হেরেছিল ব্রাজিল। ২০১৮ সালে প্রীতি ম্যাচে

অবশ্য ১–০ গোলে জিতেছে ব্রাজিল। অর্থাৎ, ক্যামেরুনের বিপক্ষে মোট ছয়বারের মুখোমুখিতে একবারই হেরেছে ব্রাজিল। জিতেছে বাকি পাঁচ ম্যাচ।

আফ্রিকার দলগুলোর বিপক্ষে বিশ্বকাপে প্রতিবারই জিতেছে ব্রাজিল।

এই মহাদেশের দলগুলোর বিপক্ষে ৭টি আলাদা বিশ্বকাপে ৭ ম্যাচই

জিতেছে পাঁচবারের বিশ্ব চ্যাম্পিয়নরা। এর মধ্যে ক্যামেরুন হেরেছে সর্বোচ্চ দুইবার।

১৯৭৪ বিশ্বকাপে জায়ারকে ৩–০ গোলে হারিয়ে আফ্রিকার

দলগুলোর বিপক্ষে যে অভিযাত্রা শুরু করেছিল ব্রাজিল,

তার নতুন পর্ব দেখা যাবে আজ লুসাইল স্টেডিয়ামে। তবে

একটি তথ্য জানিয়ে রাখা ভালো। বিশ্বকাপে আফ্রিকার

দলগুলোর বিপক্ষে এ পর্যন্ত ২০ গোল করেছে ব্রাজিল। এর

মধ্যে ক্যামেরুন একাই হজম করেছে ৭ গোল।

১৯৭৪ বিশ্বকাপে জায়ারকে ৩ গোল দেওয়ার পর ১৯৮৬

বিশ্বকাপে আলজেরিয়াকে ১–০ গোলে হারায় ব্রাজিল।

এরপর ’৯৪ বিশ্বকাপে ক্যামেরুনের জালে করেছে ৩

গোল, ’৯৮ বিশ্বকাপে মরক্কোও হজম করেছে ৩ গোল।

২০০৬ বিশ্বকাপে ঘানাকেও ৩–০ গোলে হারিয়েছিল ব্রাজিল।

পরের বিশ্বকাপে আইভরি কোস্টের বিপক্ষেও ৩ গোল করেছিল

লাতিন দলটি। এরপর ২০১৪ বিশ্বকাপে ক্যামেরুনের জালে করেছে ৪ গোল।

আফ্রিকার দলগুলোর জালে ২০ গোলের বিপরীতে ব্রাজিল হজম করেছে মাত্র ২ গোল।

আরও আপডেট নিউজ জানতে ভিজিট করুন