• সোম. ডিসে ৫, ২০২২

মেক্সিকো–পোল্যান্ড ড্রয়ে আর্জেন্টিনার বিপদ কি বাড়ল

নভে ২৩, ২০২২

মেক্সিকো–পোল্যান্ড ড্রয়ে আর্জেন্টিনার বিপদ কি বাড়ল

সৌদি আরবের কাছে আর্জেন্টিনার হেরে যাওয়ার প্রভাব পড়েছে মেক্সিকো-পোল্যান্ড ম্যাচেও।

আর্জেন্টিনা হেরে গেছে বলেই কি না মেক্সিকো আর পোল্যান্ড

দলের দুই কোচ তাঁদের কৌশলে পরিবর্তন এনেছেন! সেটা দুই দলের

মাঠের খেলায়ই ধরা পড়েছে। মেক্সিকোর কোচ টাটা মার্টিনো আর

পোল্যান্ডের সেসওয়াফ মিখমিয়েভিৎস দলকে যেন একটু রক্ষণাত্মক ফুটবলই

খেলানোর চেষ্টা করেছেন। ভাবখানা ছিল এ রকম যে এ ম্যাচে না হারা যাবেই না!

ম্যাচের ফলেও এটা স্পষ্ট, ৯০ মিনিটের খেলায় লক্ষ্যভেদ করতে পারেনি

কোনো দল, গোল শূন্য ড্র হয়েছে ম্যাচ। এতে অবশ্য পোল্যান্ডের

অধিনায়ক রবার্ট লেভানডফস্কিরও দায় আর মেক্সিকোর গোলকিপার

গিয়ের্মো ওচোয়ার অবদান আছে। ম্যাচের ৫২ মিনিটে পেনাল্টি বক্সে

লেভানডফস্কিকে ফেলে দেন কামিনস্কি। পোলিশদের পোনাল্টির

আবেদনে সাড়া দেননি রেফারি। প্রায় দুই মিনিট খেলা চলার পর

অবশ্য ভিএআরের সাহায্য নিয়ে পেনাল্টির বাঁশি বাজান তিনি।

লেভার নেওয়া পেনাল্টি বাঁ দিকে ঝাঁপিয়ে পড়ে রুখে দেন ওচোয়া।

লেভার পেনাল্টি মিসের আগে বা পরে বলার মতো খুব বেশি ঘটনা

এ ম্যাচে ঘটেনি। প্রথমার্ধে বেশির ভাগ সময়ই দুই দল এলোমেলো

আর রক্ষণাত্মক ফুটবল খেলেছে। প্রথমার্ধে দুই দল মিলিয়ে

গোলের ভালো সুযোগ একটাই তৈরি করতে পেরেছে। সেই সুযোগটি

কাজে লাগাতে পারেননি মেক্সিকোর হোর্হে সানচেজ। তাঁর গতিময় শটটি

পোল্যান্ডের গোলকিপার ভয়চেক সেজনিতে পরাস্ত করলেও চলে যায় বারের ওপর দিয়ে।

দ্বিতীয়ার্ধে দুই দলই অবশ্য আক্রমণে যাওয়ার চেষ্টা করেছে।

তবে সেটা রক্ষণটা ঠিক রেখেই। আক্রমণ করার দিক থেকে অবশ্য

এগিয়ে ছিল নিজেদের সর্বশেষ আটটি বিশ্বকাপের নকআউট

পর্বে খেলা মেক্সিকো। কিন্তু পোলিশদের রক্ষণ দেয়ালে খুব একটা ফাটল

ধরাতে পারেনি। তাদের বেশির ভাগ আক্রমণই মুখ থুবড়ে পড়েছে অ্যাটাকিং

থার্ডে গিয়ে। যে কবার পোল্যান্ডের রক্ষণ দেয়াল পেরিয়ে আরও ভেতরে

যেতে পেরেছে, তাদের সামনে বাধা হয়ে দাঁড়িয়েছেন সেজনি।

অনেক আক্রমণ করলেও গোলের দেখা পায়নি মেক্সিকো
অনেক আক্রমণ করলেও গোলের দেখা পায়নি মেক্সিকো
ছবি: রয়টার্স

মেক্সিকোর আক্রমণ সামলে পাল্টা আক্রমণে উঠেছে পোল্যান্ডও।

কিন্তু বার্সেলোনার স্ট্রাইকার লেভানডফস্কি ক্লাবের গোলের ধারাটা

বিশ্বকাপে নিয়ে আসতে পারেননি। এমনকি মেক্সিকোর গোলকিপার

ওচোয়ার বড় কোনো পরীক্ষাও নিতে পারেননি তিনি। তাই তো বিশ্বকাপে

এর আগে দুই দলের একমাত্র সাক্ষাতের ফলটা আর ফিরিয়ে আনতে

পারেননি। ১৯৭৮ বিশ্বকাপের সেই ম্যাচে মেক্সিকোকে ৩-১ গোলে হারিয়েছিল পোল্যান্ড।

মেক্সিকো-পোল্যান্ডের এই ড্রয়ে আর্জেন্টিনার দুশ্চিন্তা আরও বাড়িয়ে দেবে।

সৌদি আরবের কাছে নিজেদের প্রথম ম্যাচে ২-১ গোলে হেরে যাওয়া

লিওনেল মেসিদের এখন পরের রাউন্ডে যেতে হলে পরের দুটি ম্যাচই

জেতা ছাড়া বিকল্প খুব কম। আর আর্জেন্টিনার পরের দুটি ম্যাচ

যে আজকের ম্যাচে ড্র করা পোল্যান্ড আর মেক্সিকোর বিপক্ষেই।

আরও আপডেট নিউজ জানতে ভিজিট করুন